AB Bank
ঢাকা রবিবার, ২৩ জুন, ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

কর্মরত মহিলাদের নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করলেন সাঈদ আনোয়ার


Ekushey Sangbad
স্পোর্টস ডেস্ক
০৯:২৪ পিএম, ১৬ মে, ২০২৪
কর্মরত মহিলাদের নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করলেন সাঈদ আনোয়ার

কর্মরত মহিলাদের নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করলেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক সাঈদ আনোয়ার। গত কয়েক বছরে পাকিস্তানে বিবাহবিচ্ছেদের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। এ জন্য মহিলাদেরই দায়ী করেছেন আনোয়ার। বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সমালোচনার মুখে পড়েছেন তিনি।

সমাজমাধ্যমে একটি ভিডিওতে আনোয়ারকে পাকিস্তানে বিবাহবিচ্ছেদ বৃদ্ধি নিয়ে কথা বলতে শোনা গিয়েছে। পরিসংখ্যান অনুযায়ী গত তিন বছরে পাকিস্তানে বিবাহবিচ্ছেদের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে ৩০ শতাংশ। আনোয়ারের দাবি, কর্মরত মহিলাদের জন্য সংসার ভাঙছে।

পাকিস্তানের প্রাক্তন ওপেনিং ব্যাটার বলেছেন, ‘‘যখন থেকে পাকিস্তানের মহিলারা কাজ করতে বাইরে যেতে শুরু করেছেন, তখন থেকে বিবাহবিচ্ছেদের সমস্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। গত তিন বছরে ৩০ শতাংশ বিবাহবিচ্ছেদ বৃদ্ধি উদ্বেগের।’’

তিনি আরও বলেছেন, ‘‘এখনকার স্ত্রীরা তাদের স্বামীদের বলেন, ‘তুমি যা খুশি করো। আমি নিজে উপার্জন করতে পারি। সংসারও চালাতে পারি।’ এর পিছনে হয়তো কোনও বড় পরিকল্পনা থাকে। কেউ সঠিক পরামর্শ না পেলে ওই পরিকল্পনাটা ধরতে পারবে না। সমাজকে ধ্বংস করার চক্রান্ত চলছে।’’

বিভিন্ন দেশে সফরের অভিজ্ঞতা থেকে আনোয়ার বলেছেন, ‘‘আমি বিশ্বের বিভিন্ন জায়গায় যাই। কিছু দিন আগে ইউরোপ এবং অস্ট্রেলিয়া সফর করে ফিরেছি। দেখেছি কী ভাবে যুবসমাজ সমস্যায় পড়ছে। পরিবারগুলোর অবস্থা ভাল নয়। দম্পতিদের মধ্যে অশান্তি লেগেই আছে। পরিস্থিতি এতটাই খারাপ যে মহিলাদের রোজগার করতে যেতে হচ্ছে। উপার্জনকারী মহিলারা নিজেদের ইচ্ছা মতো চলতে চাইছেন।’’ তার দাবি অস্ট্রেলিয়ার এক শহরের মেয়র এবং নিউজিল্যান্ডের অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনও নাকি তার কাছে বিবাহবিচ্ছেদের জন্য কর্মরত মহিলাদেরই দায়ী করেছেন।

ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার পর আনোয়ার ইসলামের প্রচারক হিসাবে কাজ করেন। ২০০১ সালে তার একমাত্র কন্যার মৃত্যুর পর নিজের জীবনের পথ পরিবর্তন করে নেন। ক্রিকেট থেকে ধীরে ধীরে সরে গিয়ে ধর্মপ্রচারের কাজে নিজেকে নিয়োজিত করেন।সাবেক ক্রিকেটার এবং ইসলামের প্রচারক হিসাবে পাকিস্তানের সাধারণ মানুষের কাছে বাড়তি গ্রহণযোগ্যতা রয়েছে আনোয়ারের। কিন্তু মহিলাদের নিয়ে তার এই মন্তব্য মেনে নিতে পারেননি অনেকেই। ভক্তদের একাংশ তার তীব্র সমালোচনা করেছেন। তার সামাজিক মূল্যবোধ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন তারা।

 

একুশে সংবাদ/এস কে  

Link copied!