AB Bank
ঢাকা শুক্রবার, ১৪ জুন, ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

দিল্লিকে আশার আলো দেখাচ্ছেন ম্যাকগার্ক


Ekushey Sangbad
স্পোর্টস ডেস্ক
০৫:৫৭ পিএম, ২৩ এপ্রিল, ২০২৪
দিল্লিকে আশার আলো দেখাচ্ছেন ম্যাকগার্ক

জোড়া হার দিয়ে আইপিএল ২০২৪ অভিযান শুরু করে দিল্লি ক্যাপিটালস। তবে চেন্নাই সুপার কিংসকে পরাজিত করার পরে মনে হয়েছিল বুঝি ঘুরে দাঁড়াতে পারেন ঋষভ পন্তরা। বাস্তবে তেমন ছবি দেখা যায়নি এখনও পর্যন্ত। লিগের প্রথম ৮টি ম্যাচে দিল্লি জিতেছে মোটে ৩টি ম্যাচ। ৫টি ম্যাচে হারের মুখ দেখতে হয়েছে তাদের। যদিও প্লে-অফের দৌড় থেকে ছিটকে যাননি ঋষভরা। আপাতত নিজেদের ৮টি লিগ ম্যাচের শেষে পয়েন্ট তালিকার আট নম্বরে থাকা দিল্লি ক্যাপিটালসের সার্বিক পারফর্ম্যান্সের বিশ্লেষণে চোখ রাখা যাক।   

দিল্লি ক্যাপিটালসের প্রথম ৮ ম্যাচের ফলাফল:-
১. মুল্লানপুরে পাঞ্জাব কিংসের কাছে ৪ উইকেটে পরাজিত হয়।
২. জয়পুরে রাজস্থান রয়্যালসের কাছে ১২ রানে হেরে যায়। 
৩. বিশাখাপত্তনমে চেন্নাই সুপার কিংসকে ২০ রানে হারিয়ে দেয়।
৪. বিশাখাপত্তনমে কেকেআরের কাছে ১০৬ রানে হার মানে।
৫. ওয়াংখেড়েতে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের কাছে ২৯ রানে হেরে যায়। 
৬. লখনউয়ে এলএসজিকে ৬ উইকেটে হারিয়ে দেয়।
৭. আমদাবাদে গুজরাট টাইটানসকে ৬ উইকেটে পরাজিত করে।
৮.দিল্লিতে সানরাইজার্সের কাছে ৬৭ রানে হেরে যায়।

প্রথম ৮ ম্যাচে দিল্লি ক্যাপিটালসের সেরা পাঁচ ব্যাটার:-
১. ঋষভ পন্ত ৮টি ইনিংসে ২৫৪ রান করেছেন।
২. ত্রিস্তান স্টাবস ৭টি ইনিংসে ১৯৯ রান করেছেন।
৩. পৃথ্বী শ ৬টি ইনিংসে ১৭৪ রান করেছেন। 
৪. ডেভিড ওয়ার্নার ৭টি ইনিংসে ১৬৭ রান করেছেন।
৫. অভিষেক পোড়েল ৭টি ইনিংসে ১৪৮ রান করেছেন।

প্রথম ৮ ম্যাচে দিল্লি ক্যাপিটালসের সেরা পাঁচ বোলার:-
১. কুলদীপ যাদব ৫টি ইনিংসে ১০টি উইকেট নিয়েছেন।
২. খলিল আহমেদ ৮টি ইনিংসে ১০টি উইকেট নিয়েছেন।
৩. মুকেশ কুমার ৫টি ইনিংসে ৯টি উইকেট নিয়েছেন।
৪. এনরিখ নরকিয়া ৫টি ইনিংসে ৬টি উইকেট নিয়েছেন।
৫. ইশান্ত শর্মা ৬টি ইনিংসে ৬টি উইকেট নিয়েছেন।

লিগের প্রথমার্ধে দিল্লি ক্যাপিটালসের ব্যর্থতার ৫ কারণ:-
১. দিল্লির হয়ে রান করছেন অনেকেই। তবে একই ম্যাচে দলগত ব্যাটিং জমাট দেখাচ্ছে না মোটেও। ব্যাটিং বিভাগে সবাই মিলে দায়িত্ব ভাগ করে নিতে ব্যর্থ দিল্লির তারকারা। যার ফল ভুগতে হচ্ছে ম্যাচে।

২. ডেভিড ওয়ার্নার পরিচিত ছন্দে নেই। ওপেনে ওয়ার্নারকে জমাট দেখালে দিল্লির ব্যাটিংকে তুলনায় শক্তিশালী মনে হতো। তার উপরে চোট পেয়ে বসেছেন ওয়ার্নার।

৩. মিচেল মার্শ চোট পেয়ে দেশে ফেরায় বড়সড় ধাক্কা লাগে দিল্লি ক্যাপিটালস শিবিরে। ব্যাটে-বলে মার্শের অভাব টের পাচ্ছে ক্যাপিটালস।

৪. দিল্লির পেসাররা প্রতি ম্যাচেই যথেচ্ছ রান খরচ করছেন। কুলদীপ ও অক্ষরের স্পিনজুটিই ভরসা হয়ে দাঁড়িয়েছে ক্যাপিটালসের। খলিল উইকেট তুলছেন বটে, তবে প্রতিপক্ষের উপরে চাপ বজায় রাখতে পারছেন না।

৫. লোয়ার অর্ডার ব্যাটিং দিল্লির অন্যতম মাথা ব্যাথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। শুরুতেই পরপর উইকেট হারালে সেই ধাক্কা সামলে ওঠা সম্ভব হচ্ছে না দিল্লির পক্ষে।

দিল্লি ক্যাপিটালসের ইতিবাচক দিক:-
১. ক্যাপ্টেন ঋষভ পন্ত রানের মধ্যে রয়েছেন। পরিস্থিতির চাপে সব ম্যাচে ডাকাবুকো ব্যাটিং সম্ভব না হলেও তাঁর স্ট্রাইক-রেট নিতান্ত খারাপ নয়।
২. জ্যাক ফ্রেজার ম্যাকগার্ক দিল্লির নতুন তারা হয়ে উদিত হয়েছেন। যে রকম ধ্বংসাত্মক মেজাজে ব্যাট করছেন ফ্রেজার, তাতে লিগের দ্বিতীয়ার্ধে চমক দেখাতে পারেন অজি তারকা। ম্যাকগার্ক ৩টি ইনিংসে ব্যাট করে ২টি অর্ধশতরান-সহ ১৪০ রান সংগ্রহ করেছেন। তিনি ইতিমধ্যেই ৯টি চার ও ১৪টি ছক্কা মেরেছেন। ২২২.২২-এর অবিশ্বাস্য স্ট্রাইক-রেটে রান সংগ্রহ করছেন ফ্রেজার।
৩. আইপিএল ২০২৪-এর বয়স যত গড়াচ্ছে, পিচ তুলনায় স্লো হচ্ছে। ফলে কুলদীপ যাদবকে সামলানো ক্রমশ চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াচ্ছে প্রতিপক্ষ ব্যাটারদের কাছে।


একুশে সংবাদ/এস কে  

Link copied!