ঢাকা শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারি, ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. পডকাস্ট

কেনের সামনে চুক্তি নবায়নের সুযোগ আছে


Ekushey Sangbad
স্পোটর্স ডেস্ক
০২:৪৭ পিএম, ২৪ জানুয়ারি, ২০২৩
কেনের সামনে চুক্তি নবায়নের সুযোগ আছে

এন্টোনিও কন্টের দল টটেনহ্যাম হটস্পারের সাথে এখনো চুক্তি নবায়নের দরজা খোলা আছে তারকা স্ট্রাইকার হ্যারি কেনের সামনে। ইংলিশ এই অধিনায়ক ২০২৪ সালের গ্রীষ্মে ফ্রি এজেন্টে পরিনত হবেন। প্রিমিয়ার লিগে ধুকতে থাকা টটেনহ্যামে আরো একবার কেনের ভবিষ্যত নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে।


২০২১ সালে টটেনহ্যামকে বিদায় জানানোর আগ্রহ প্রকাশ করলেও তাতে সফল হননি কেন। ঐ সময় ম্যানচেস্টার সিটি ও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড কেনকে দলে নিতে মুখিয়ে ছিল। কিন্তু স্পার্স চেয়ারম্যান দলের গুরুত্বপূর্ণ তারকাকে ১৫০ মিলিয়ন পাউন্ডের নীচে ছেড়ে দিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছিলেন। যে কারনে কেনকে বাধ্য হয়েই স্পার্সে থেকে যেতে হয়। ২৯ বছর বয়সী কেনের সাথে ঐ সময়ই চুক্তি নবায়নের বিষয়টিও সামনে চলে আসে। কন্টের অধীনে পরের মৌসুমেই কেনের সহযোগিতায় টটেনহ্যাম আবারো চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ফিরেছিল। 


এবারের লিগে এখনো পর্যন্ত টেবিলের পঞ্চম স্থানে আছে টটেনহ্যাম। ২০২৩ সালে এ পর্যন্ত  লিগে প্রথম চারটি ম্যাচের মধ্যে তিনটিতেই পরাজিত হয়েছে কন্টের শিষ্যরা। যে কারনে চতুর্থ স্থানে থাকা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের থেকে পয়েন্টের ব্যবধানও বেড়েছে। 


কেনের সাথে  ক্লাবের বর্তমান চুক্তির মেয়্দা  ১৮ মাস বাকি আছে। সম্প্রতি ফর্মহীনতায় ভুগতে থাকা টটেনহ্যামকে টেনে তুলতে হলে কেনের ভাল খেলার বিকল্প নেই। ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডো চলে যাবার পর স্থায়ীভাবে একজন স্বীকৃত স্ট্রাইকারকে দলে ভেরানোর  লক্ষ্যে এবারও কেনকে নিতে  জোড় প্রচেষ্টা চালাতে পারে ইউনাইটেড। কেন নিজেও ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে যাবার ব্যপারে আগ্রহ দেখিয়েছেন। যদিও স্থানীয় একটি গণমাধ্যমের দাবী ইংলিশ অধিনায়ক সঠিক পরিস্থিতিতে টটেনহ্যামের সাথে চুক্তি বৃদ্ধির বিষয়টিও বিবেচনা করতে পারেন। রিপোর্টের সূত্র মতে জানা গেছে কেন ও টটেনহ্যাম ২০২১ সালের গ্রীষ্মে ট্রান্সফার আলোচনার পর এখনো পর্যন্ত নতুন চুক্তি নিয়ে কোন কথা বলেনি। এই সময়ের মধ্যে বিশ^কাপ ও জানুয়ারি ট্রান্সফার উইন্ডো টটেনহ্যামের মূল লক্ষ্য ছিল। যে কারনে কেনের সাথে চুক্তি নবায়ন নিয়ে তারা কোন আলোচনা করেনি। 
 

শীতকালীন ট্রান্সফার উইন্ডো শেষ হবার পর এ নিয়ে আলোচনার শুরুর ইঙ্গিত পাওয়া গেছে। কেন এখনো ক্যারিয়ারে বড় কোন ক্লাব শিরোপা জিততে পারেননি। টটেনহ্যামকে ১৫ বছরের খরা কাটিয়ে যাবার আগে অন্তত একটি শিরোপা উপহার দিতে চান কেন। সম্ভাব্য বিদায়ের থেকেও কেনের স্পার্সদের জার্সি গায়ে শিরোপা জয়ের বিষয়টি এখন সামনে চলে এসেছে। এ কারনেই কেনের এজেন্টও মনে করেন এই মুহূর্তে স্পার্স ছাড়ার গুরুত্বপূর্ণ কোন আলোচনা হয়তো সম্ভব নয়। 
টটেনহ্যাম এখনো এফএ কাপ ও চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সাফল্যের জন্য লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। এফএ কাপের চতুর্থ রাউন্ডে এ সপ্তাহে প্রিসন্টর নর্থ এন্ডর ও আগামী মাসে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলতে এসি মিলানকে মোকাবেলা করবে লন্ডনের ক্লাবটি। 
 

মাঠের পারফরমেন্স বিবেচনা করলে ট্রান্সফার মার্কেটে দলের নতুন রিক্রুটের বিষয়টি অনেকটাই কেনের সিদ্ধান্তের উপর নির্ভর করছে। আদৌ যদি তিনি ক্লাব ছাড়তে মরিয়া হয়ে থাকেন তবে গ্রীষ্মেই তাকে বিক্রি করে দিবে স্পার্স। গতকাল পর্যন্ত সব ধরনের প্রতিযোগিতায় কেন ৪১৪ ম্যাচে ২৬৫ গোল করা ছাড়াও ৬২টি এ্যাসিস্ট করেছেন। এর মধ্যে ২০২২-২৩ মৌসুমে ২৮ ম্যাচে রয়েছে ১৭টি গোল ও তিনটি এ্যাসিস্ট। 
 

টটেনহ্যামের সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতা হিসেবে ২৬৬ গোল করে এতদিন শীর্ষে থাকা জিমি গ্রিভসকে গতকাল ফুলহ্যামের বিপক্ষে গোল করে স্পর্শ করেছেন কেন। 
 

এদিকে এ মৌসুমের শেষেই ম্যানেজার কন্টের সাথে চুক্তি শেষ হয়ে যাচ্ছে টটেনহ্যামের। গুঞ্জন রয়েছে গ্রীষ্মেই স্পার্স ছেড়ে অন্যত্র পাড়ি জমাচ্ছেন  ইতালিয়ান এই কোচ।
 

একুশে সংবাদ/ সম