AB Bank
ঢাকা শনিবার, ০২ মার্চ, ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে অংশ গ্রহনকারী বীর মুক্তিযোদ্ধার নামে সড়ক


Ekushey Sangbad
আশরাফ গোলাপ, কেন্দুয়া, নেত্রকোনা
০৬:২৭ পিএম, ৭ নভেম্বর, ২০২৩
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে অংশ গ্রহনকারী বীর মুক্তিযোদ্ধার নামে সড়ক

নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলার আশুজিয়া ইউনিয়নের আশুজিয়া গ্রামের প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন ভূঁইয়ার নামে স্থানীয় একটি সড়কের নামকরণ করা হয়েছে। আশুজিয়া গ্রামের পাকা সড়ক থেকে আশুজিয়া ভূঁইয়াবাড়ি পর্যন্ত কাচা সড়কটি ‘বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন ভূঁইয়া সড়ক’ হিসেবে নামকরণ করা হয়। 

মঙ্গলবার (৭ নভেম্বর) দুপুরে সড়কটির নামফলক উন্মোচন করা হয়। নামফলক উন্মোচন করেন, স্থানীয় আশুজিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আশুজিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মঞ্জুর আলী। এ সময় প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন ভূঁইয়ার ছেলে সাংবাদিক মিনহাজ শিহাব ফুয়াদ, ইউপি সদস্য বাবুল ইসলাম, আল আমিন, মজিবুর রহমান, সোহেল মিয়া, সংরক্ষিত নারী ইউপি সদস্য ফাতেমা আক্তার, কেন্দুয়া রিপোর্টার্স ক্লাবের সাবেক সভাপতি সাংবাদিক আবুল কাশেম আকন্দসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন। 

সাংবাদিক মিনহাজ শিহাব ফুয়াদ বলেন, আমার বাবার নামে সড়কের নামকরণ করায় আমরা খুবই খুশি। তবে সড়কটি অবিলম্বে পাকাকরণের উদ্যোগ গ্রহণ করার জন্য সংশ্লিষ্টদের প্রতি জোর দাবি জানাই। 

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ১৯৪৩ সালে আবুল হোসেন ভূঁইয়া বৃটিশ ইন্ডিয়ান সেনাবাহিনীতে যোগদান করেন এবং দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেন। ১৯৪৭ সালে তিনি পাকিস্তান সেনাবাহিনীতে যোগদান করেন এবং প্রথম পাক ভারত যুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেন। ১৯৬৫ সালে দ্বিতীয় পাক ভারত যুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেন। তবে বাঙ্গালীদের প্রতি বৈষম্যের প্রতিবাদে ১৯৬৭ সালে তিনি পাকিস্তান সেনাবাহিনী থেকে স্বেচ্ছায় অবসর গ্রহণ করেন। পরে ১৯৬৭ সালেই তিনি সিভিল সার্ভিসে সুপারিনটেন্ডেন্ট হিসাবে ভোকেশনাল ট্রেনিং ইন্সটিটিউট (ভি.টি.আই) সিরাজগঞ্জে যোগদান করেন। ১৯৭১ সালে সিরাজগঞ্জে কর্মরত থাকা অবস্থায় তিনি মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেন। ১১ নম্বর সেক্টরের মহেশখলা সাব সেক্টরের অর্ন্তগত মহেশখলা গেরিলা ক্যাম্পে সাব সেক্টর কমান্ডার মেজর মতিউর রহমানের ডেপুটি হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৮২ সালে তিনি সর্বশেষ কর্মক্ষেত্র কিশোরগঞ্জ ভোকেশনাল ট্রেনিং ইন্সটিটিউট (ভি.টি.আই) থেকে অবসর গ্রহণ করেন। 

২০১৯ সালের ৩ জানুয়ারি প্রয়াত হন বর্ণাঢ্য জীবনের অধিকারী এই গুণীজন।

 

একুশে সংবাদ/বিএইচ

Link copied!