AB Bank
ঢাকা শুক্রবার, ১৪ জুন, ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

হায়দরাবাদকে হারিয়ে কলকাতার তৃতীয় শিরোপা জয়


Ekushey Sangbad
স্পোর্টস ডেস্ক
১০:৫৮ পিএম, ২৬ মে, ২০২৪
হায়দরাবাদকে হারিয়ে কলকাতার তৃতীয় শিরোপা জয়

২০১৪ সালে শেষবার আইপিএলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স। টুর্নামেন্টের সবচেয়ে বেশি আলো ছড়ানো দুই দলই খেলেছে ফাইনালে। তবে সেই তুলনায় খুব একটা উত্তাপ ছড়ালো না আইপিএলের এবারের ফাইনাল। মৌসুমের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে এসে পুরোদমে খেই হারিয়ে ফেলে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। ফাইনালে হায়দরাবাদকে নিয়ে রীতিমতো ছেলে খেলা খেলেছে কলকাতা। হায়দরাবাদকে ৮ উইকেটে উড়িয়ে দিয়ে তৃতীয় শিরোপা ঘরে তুলেছে শাহরুখের দল।

এর আগে, চেন্নাইয়ের এমএ চিদাম্বারাম স্টেডিয়ামে ম্যাচে আগে ব্যাট করে কলকাতাকে ১১৪ রানের সহজ লক্ষ্য দেয় হায়দরাবাদ। জবাব দিতে মাঠে নেমে ৫৭ বল এবং ৭ উইকেট হাতে থাকতেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় কলকাতা। এতে তৃতীয় শিরোপা জয়ের উল্লাসে মাতে কলকাতার খেলোয়াড়রা।

সহজ লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি কলকাতার। ২ বলে ৬ রান করে সাজঘরে ফেরেন ওপেনার সুনীল নারিন। তবে তৃতীয় উইকেটে পিচে এসে ব্যাট চালাতে থাকেন ভেঙ্কাতেশ আইয়ার। তাকে সঙ্গ দেন আফগান ওপেনার রহমানুল্লাহ গুরবাজ।

দুজনের ব্যাটে ভর করে জয়ের পথে ছুটতে থাকে কলকাতা। ৩২ বলে ৩৯ রান করে গুরবাজ আউট হলেও ২৪ বলে ফিফটি তুলে নেন ভেঙ্কাতেশ আইয়ার। শেষ পর্যন্ত শ্রেয়াস আইয়ারের ৩ বলে ৬ রান এবং ভেঙ্কাতেশের ২৬ বলে ৫২ রানের ইনিংসে ভর করে ৫৭ বল এবং ৭ উইকেট হাতে থাকতেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় কলকাতা।হায়দরাবাদের হয়ে প্যাট কামিন্স এবং শাহবাজ আহমেদ একটি করে উইকেট নেন।

The KKR posse, including the owners Shah Rukh Khan - his family - and Juhi Chawla, celebrate their win, Kolkata Knight Riders vs Sunrisers Hyderabad, IPL 2024 final, Chennai, May 26, 2024

এর আগে টস জিতে ব্যাটিংয়ে সিদ্ধান্ত নেয় হায়দরাবাদ। তবে কলকাতার দাপুটে বোলিংয়ে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে কামিন্সের দল। দলীয় ২১ রানে তিন উইকেট হারায় তারা। ইনিংসের পঞ্চম বলে অভিষেক শর্মাকে বোল্ড আউট করে মিচেল স্টার্ক।

পরের ওভারে ট্রাভিস হেডকে ফেরান ভাইভ আরোরা। এরপর এইডেন মারক্রামকে সঙ্গে নিয়ে শুরু ধাক্কা সামাল দেওয়ার চেষ্টা করেন রাহুল থ্রিপাঠী। তবে নিজের তৃতীয় ওভারে রাহুলকে ক্যাচ আউটের ফাঁদে ফেলেন স্টার্ক।

এদিন ব্যাট আলো ছড়াতে পারেননি নিতিশ কুমারও। ১০ বলে ১৩ রান করেন তিনি। ২৩ বলে ২০ রান করে মারক্রামকে আউট করে হায়দরাবাদের ব্যাটিং লাইনে ধস নামায় আন্দ্রে রাসেল। এরপর শাহবাজ আহমেদ (৮) এবং আব্দুল সামাদ ৪ রান করে উইকেট মিছিলে যোগ দেন।

তবে এক প্রান্ত আগলে রেখে রান তোলার চেষ্টা করেন হেনরিচ ক্লাসেন। তবে ইনিংস বড় করতে পারেননি এই প্রোটিয়া ব্যাটার। ১৭ বলে ১৬ রান করে রানার দ্বিতীয় শিকার হন তিনি। শেষ দিকে দলের হাল ধরেন অধিনায়ক প্যাট কামিন্স। ১১ বলে ৪ করে উনাদকাট এবং ১৯ বলে ২৪ রান করে কামিন্স আউট হলে ৯ বল হাতে থাকতেই ১১৩ রানে অলআউট হয় হায়দরাবাদ।

 একুশে সংবাদ/এস কে


 

Link copied!