AB Bank
ঢাকা রবিবার, ২১ জুলাই, ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের মালামাল নিয়ে মোংলা বন্দরে দুই রুশ জাহাজ


Ekushey Sangbad
জেলা প্রতিনিধি, বাগেরহাট
১০:১১ পিএম, ২৯ জানুয়ারি, ২০২৩
পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের মালামাল নিয়ে মোংলা বন্দরে দুই রুশ জাহাজ

দেশে চলমান মেগা প্রকল্প রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের মেশিনারি মালামাল নিয়ে মোংলা বন্দর জেটিতে একসঙ্গে দুইটি বিদেশি রাশিয়ান জাহাজ নোঙর করেছে। জাহাজ দুটি মোংলা বন্দরের ৭ ও ৮ নম্বর জেটিতে এসে পৌঁছেছে।

 

রোববার (২৯ জানুয়ারি) দুপুর ৩টা ১৬ মিনিটে বন্দরের ৭ নম্বর জেটিতে ১ হাজার ৪০০ দশমিক ৪২ মেট্রিক টন মেশিনারি পণ্য নিয়ে নোঙর করেছে ভেনুয়াটু পতাকাবাহী ‘এমভি আনকাসান’ নামের রুশ জাহাজ।

 

একইদিনে ৩৬ মিনিটের ব্যবধানে বন্দরের ৮ নম্বর জেটিতে পানামা পতাকাবাহী ‘এমভি সাপোডিলা’ নামের আরও একটি বাণিজ্যিক জাহাজ নোঙর করে। এই জাহাজ দুইটিতেই রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের ২ হাজার ৪১৫টি প্যাকেজে মোট ১ হাজার ৯১৮ দশমিক ৪৬৩ মেট্রিক টন মেশিনারি যন্ত্রাংশ আনা হয়েছে।

 

বিদেশি বাণিজ্যিক জাহাজ ভেনুয়াটু পতাকাবাহী ‘এমভি আনকাসান’ জাহাজের শিপিং এজেন্ট মেসার্স কনভেয়ার শিপিং লাইন্সের খুলনা ম্যানেজার (অপারেশন শিপিং) সাধন কুমার চক্রবর্তী বলেন, জাহাজটি ১ হাজার ৯৭৯টি প্যাকেজে ১ হাজার ৪০০ দশমিক ৪২ মেট্রিক টন পণ্য নিয়ে ২৭ ডিসেম্বর (শুক্রবার) রাশিয়ার নবরস্তি বন্দর থেকে মোংলা বন্দরের উদ্দেশে ছেড়ে আসে। রোববার দুপুর সোয়া ৩টায় এটি বন্দরের ৭ নম্বর জেটিতে এসে নোঙর করে। পরে সেসব পণ্য খালাস প্রক্রিয়া শুরু হয়। 

 

অন্যদিকে, জাহাজের শিপিং এজেন্ট ইন্টারপোর্টের খুলনা ম্যানেজার ওয়াসিম বলেন, দুপুরে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের মেশিনারি পণ্য নিয়ে রাশিয়ার সেন্টপিটারভার বন্দর থেকে পানামা পতাকাবাহী ‘এমভি সাপোডিলা’ নামক বিদেশি বাণিজ্যিক জাহাজ বন্দরের ৮ নম্বর জেটিতে নোঙর করে। এই জাহাজে ৪৩৬ টি প্যাকেজে ৫১৮ দশমিক ৪২১ মেট্রিক টন মেশিনারি পণ্য রয়েছে।

 

মোংলা বন্দরের শ্রমিক ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান (ইষ্টিভিডরস) কোম্পানি মেসার্স অভিরত এজেন্সির স্থানীয় ম্যানেজার মো. রুহুল আমিন বলেন, বন্দর জেটিতে নোঙরের পর পরই জাহাজ থেকে পণ্য খালাস শুরু হয়। এসব পণ্য খালাস হতে ২ থেকে ৩ দিন সময় লাগবে। জাহাজ থেকে পুরোপুরি খালাস হবার পর আগামী ৫ থেকে ৬ দিনের মধ্যে সেগুলো সড়ক ও নৌ পথে পাবনার ঈশ্বরদীতে নির্মাণাধীন রুপপুর বিদ্যুৎ কেন্দ্রে পৌঁছে যাবে।

 

বন্দরের হারবার বিভাগের ‍সূত্র বলছে, শুরু থেকে এ পর্যন্ত মোংলা বন্দর দিয়ে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের মেশিনারি যন্ত্রাংশ বোঝাই জাহাজ আসছে মোট ৪২টি। এসব জাহাজ থেকে পণ্য খালাস হয়েছে ৭০ হাজার ৪৪২ দশমিক ৪৬৩ মেট্রিক টন।

 

এদিন দুপুরে একইসঙ্গে বন্দরের হারবাড়িয়া এলাকার ৫, ১২ ও ১৩ নম্বর বয়ায় নোঙর করেছে কিংকার ও সারসহ আরও ৩টি বাণিজ্যিক জাহাজ। রোববার দুপুরে মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার বিভাগ এই তথ্য নিশ্চিত করেছে।

 

হারবার বিভাগ ও সংশ্লিষ্ট আমদানি-রফতানিকারক ব্যাবসায়ীরা বলেন, এ বন্দরের প্রতি বর্তমান সরকারের সুদৃষ্টি আর সহায়তায় দেশের নির্মাণাধীন প্রায় সব কয়েকটি মেগা প্রকল্পের মালামাল এখন বিশেষ অগ্রাধিকার ভিত্তিতে মোংলা বন্দর দিয়ে খালাস হচ্ছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে আধুনিক পদ্ধতিতে এ বন্দরের জনবল দিয়ে এসব পণ্য খালাস হওয়ায় ব্যবসায়ীরা এই বন্দর ব্যবহারে আগ্রহী হচ্ছেন।

 

তাই বন্দর কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা অব্যাহত রাখলে আমদানি-রফতানিকারক ব্যবসায়ীরা এ মোংলা বন্দর ব্যবহারে আরও বেশি আগ্রহী হবেন বলে আশা প্রকাশ করেন সংশ্লিষ্ট বন্দর ব্যবহারকারীরা।

 

একুশে সংবাদ.কম/স.ব.প্র/জাহাঙ্গীর

Link copied!