AB Bank
ঢাকা সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

খাবারের সন্ধানে জঙ্গল ছেড়ে লোকালয়ে বানর


Ekushey Sangbad
টি.আই সানি, শ্রীপুর, গাজীপুর
০৩:০৮ পিএম, ২৭ ডিসেম্বর, ২০২৩
খাবারের সন্ধানে জঙ্গল ছেড়ে লোকালয়ে বানর

জীববৈচিত্রের একটি অংশ দখল করে আছে বানর। গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার বরমী বাজারসহ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় বানরের পদচারণা থাকলেও বর্তমানে হারিয়ে যেতে বসেছে প্রকৃতির অন্যতম এ প্রাণীটি। এদের রক্ষায় নেই সরকারি বা বেসরকারি কোনো পদক্ষেপ। এভাবে চলতে থাকলে একসময় হয়তো বিলুপ্তি ঘটবে প্রাণীটির।

এখন আর আগের মতো বন-জঙ্গলে আম, কলা কাঁঠালসহ অন্যান্য প্রাকৃতিক ফলমূল নেই। বনের পশু-পাখিরাও অনাহারে থাকতে হয় খাদ্যের অভাবে। তাইতো, বন ছেড়ে লোকালয়ে বানরের দল। অস্তিত্ব রক্ষাই ওদের বড় চ্যালেঞ্জ। প্রাচীন আবাস ছেড়ে আশেপাশের গ্রাম  ও ফসলি জমিতে ছঁড়িয়ে পড়ছে ওরা।

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার বরমী ইউনিয়নের বরমী বাজারে প্রাচীন কাল থেকে সেখানে বানর বসবাস করে আসছে। মানুষের পাশাপাশি বরমী বাজারের বিভিন্ন গাছে ঘরের চালে বাড়ির সাদে জনপথ মাতিয়ে ভালোই ছিলো ওরা। নিকটাত্মীয়ের মর্যাদায় আদরে কদরে ভালোই দিন কাটাচ্ছিলো ওদের।

বর্তমানে জঙ্গলের আকৃতি কমেছে। ফলে খাবারে টান পড়েছে তাদের। এ জনপদে বানর এখন রীতিমতো বড় সমস্যা। তাদের জীবধারন রীতি এখন রীতিমতো উৎপাত এই জনপদে।

বরমী ইউনিয়নের পোষাইদ গ্রামের এলাকাবাসী মুজিবুর রহমান জানান, সুযোগ পেলেই ছোঁ মেরে খাবার কেড়ে নিচ্ছে। দলবেঁধে জনপদের বাড়ীঘরে হামলা করছে। ভাতের হাঁড়ি উল্টে দিচ্ছে। গিরস্থের মুরগী তাড়িয়ে ডিম নিয়ে যাচ্ছে। বেড়ে রাখা ভাত-তরকারীর প্লেট নিয়ে যাচ্ছে। গাছের ফল, ক্ষেতের ফসল তছনছ করছে। যতটুকু খাচ্ছে তারচেয়ে বেশী নষ্ট করছে। কৃষকের সর্বনাশ ঘটাচ্ছে ওরা।

সফিকুল ইসলাম জানান, আগে বরমী বাজারে থাকতো বানর,বাজারের আশেপাশে বাড়ীতে ফলজ গাছপালার প্রাচুর্য ছিলো। বানরদের খাবারে কমতি ছিলো না। এখন সে অবস্থা নেই।

খাবারের সন্ধানে লোকালয়ে বানর।



ধানের সময় হলে কৃষককে দেখা যায় লাঠি হাতে নিয়ে ধানী জমি পাহাড়া দিতে। রোজ সকাল—সন্ধ্যা গাছের ছায়ায় লাঠি হাতে মাচায় বসে এভাবে বানরের কবল থেকে ফসল রক্ষার চেষ্টা করেন।

গ্রামবাসীর এতো বিরুপ মনোভাব ও আচরনের কারনে বানররা এখন দলে দলে চারপাশের বিভিন্ন জনপদে ছড়িয়ে পড়ছে। শিক্ষার্থী তারেক মাহমুদ অপু জানায়, তাদের এলাকায় বানরের উৎপাতে এক মরিচ ছাড়া আর কোন শাক-সবজী বা ফসলের চাষ কঠিন হয়ে পরেছে। কয়েক বছর ধরে বানরের দল ঘাঁটি গেড়েছে তাদের গ্রামে।

বরমী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন বললেন, বানরগুলোর জন্য নিরাপদ আশ্রয়, খাদ্যের ব্যবস্থা ও রক্ষণাবেক্ষণে ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে একাধিকবার সরকারের কাছে আবেদন করা হলেও সাড়া মেলেনি।

শ্রীপুর উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ এ,কে এম আতিকুর রহমান বলেন, খাবারের অভাবজনিত কারন তো আছেই, এছাড়াও মানুষের গনবসতী মানুষ চলাচলে বানরদের বিচরন কমে যাচ্ছে। তবে শ্রীপুর উপজেলার বরমী বাজারের ঐতিহ্য বানরগুলোকে বাঁচাতে সরকারি ও বেসরকারিভাবে দ্রুত উদ্যোগ নেওয়া প্রয়োজন বলে তিনি মনে করেন।

 

একুশে সংবাদ/বিএইচ

Link copied!