AB Bank
ঢাকা বুধবার, ১৭ এপ্রিল, ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

ইবিতে মঞ্চ তৈরিতে গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন


ইবিতে মঞ্চ তৈরিতে গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) প্রশাসনের গাছ কেটে মঞ্চ তৈরির সিদ্ধান্তে বৃক্ষ নিধন ও শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বিঘ্নিত হওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে সাধারণ শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার বেলা ১১টায় অনুষদ ভবন এবং ফলিত বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ভবনের মাঝে গাছ কেটে রাখা স্থানের সামনে এ মানববন্ধন করেন তারা। এছাড়া কেটে রাখা গাছের পাশে নতুন চারটি গাছের চারা রোপণ করে প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন ইবি সংসদ। পরে বটতলা প্রাঙ্গণে মঞ্চ তৈরির পক্ষে বিপক্ষে সাধারণ শিক্ষার্থীদের মতামত সংগ্রহ করে ছাত্র মৈত্রী ইবি শাখা। এছাড়া ‘ঐক্যমঞ্চ’ প্রশাসন বরাবর দুই অনুষদের মাঝে মুক্তমঞ্চ স্থাপনের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করাসহ ছয় দফা দাবি সংবলিত স্মারকলিপি দেয়।  

জানা যায়, সকাল সাড়ে দশটায় দুই একাডেমিক ভবনের মাঝে গাছ কাটা স্থানের পাশেই নতুন চারটি গাছের চারা রোপণ করেছে ছাত্র ইউনিয়ন। প্রতিটি গাছের সঙ্গে তারা ‘গাছ কাটা নিষেধ’ সংবলিত প্লাকার্ড ঝুলিয়ে দিয়েছে। বেলা ১১টায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে মানববন্ধন করেন প্রায় দুই শতাধিক শিক্ষার্থী। এসময় তারা প্রশাসনের কাছে দুই একাডেমিক ভবনের মাঝে মঞ্চ তৈরি না করে অন্য কোনো স্থানে এ মঞ্চ তৈরির দাবি জানায়। একইসঙ্গে একাডেমিক ভবনের মাঝে মঞ্চ তৈরিতে ক্লাস-পরীক্ষায় বিভিন্ন সমস্যা হবে বলে দাবি করেন তারা। পরে সাধারণ শিক্ষার্থীদের থেকে এই মঞ্চ তৈরির পক্ষে-বিপক্ষে এবং ‘মঞ্চ তৈরির বিকল্প স্থান কোথায় হতে পারে’ সে সম্পর্কে মতামত সংগ্রহ করে ছাত্র মৈত্রী ইবি শাখা। দুপুর সাড়ে তিনটায় বিশ^বিদ্যালয়ের সকল সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের ঐক্যবদ্ধ প্লাটফর্ম ‘ঐক্যমঞ্চ’ প্রশাসন বরাবর দুই অনুষদ ভবনের মাঝে মুক্তমঞ্চ স্থাপনের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করা, কর্তনকৃত গাছের সমপরিমাণ অর্থের গাছ লাগানো, পড়াশোনার সুষ্ঠু পরিবেশ মঞ্চ স্থাপনের সঠিক জায়গা নির্ধারণসহ ছয় দফা দাবি সংবলিত স্মারকলিপি জমা দেয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান প্রকৌশলী শরীফ উদ্দীন বলেন, প্রশাসন এখনও এ বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত জানায়নি। প্রশাসন থেকে পরবর্তী নির্দেশনা পেলে সে অনুযায়ী কাজ করবো। উপাচার্য ছুটিতে আছেন। তিনি আসলে সম্মিলিতভাবে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

একুশে সংবাদ/এস কে


 

Link copied!