ঢাকা মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১২ আশ্বিন ১৪২৯

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank

চিকিৎসকদের নামে অপপ্রচার ও সম্মানহানির অপচেষ্টার প্রতিবাদ 


Ekushey Sangbad
জেলা প্রতিনিধি,কুড়িগ্রাম
০৯:২৪ পিএম, ১১ আগস্ট, ২০২২
চিকিৎসকদের নামে অপপ্রচার ও সম্মানহানির অপচেষ্টার প্রতিবাদ 

ছবি: সংগৃহীত

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে চিকিৎসকদের সমন্ধে অপপ্রচার এবং সম্মানহানির অপচেষ্টার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ স্বরূপ জবাবী সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (১১ আগষ্ট) বিকেলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের কক্ষে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী বৃন্দের আয়োজনে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। 

জবাবী সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডাঃ আনোয়ার হোসেন ঘটনার বর্ণনা দিয়ে বলেন, রাত দুইটার দিকে বালারহাট এলাকার এক ভেলিভারি রোগীকে এমারজেন্সিতে ভর্তি করা হয়। সেই রোগিটিকে দেখতে আমি উপর তলায় যাই। এমতাবস্থায় তিনজন লোক সেখানে হুট করে প্রবেশ করে। 

আমি তাদের পরিচয় জানতে চাইলে তারা জানান, আমরা বুকের ব্যাথার রোগী নিয়ে এসেছি আপনি একটু দেখেন। আমি বললাম ভাই আপনাদের এখানে ঢোকা ঠিক হয় নাই, আপনারা নিচে যান আমি দেখছি। এই কথা বলার পর একজন রাগান্বিত ভাবে বলল; ওনাকে চেনেন উনি একজন শিক্ষক। আমি বললাম, শিক্ষক তো কি হয়েছে। এখানে তো একজন এমার্জেন্সি ভেলিভারি রোগী। আপনারা নিচে একটু বসেন আমি আসতেছি। এ কথা বলাতেই ওনারা চিল্লাচিল্লি শুরু করে দেন এবং বিভিন্ন ধরনের হুমকি ধামকি সহ অনেক অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করেন। ওনারাই খারাপ ব্যবহার করলো! ভাষা খারাপ করলো! এখন আমার নামে মিথ্যা অপপ্রচার চালাচ্ছে। আমিতো ফুলবাড়ীরই সন্তান। চন্দ্রখানা বালাতারি চিকার মোড়ে বাড়ি। আমি হাসপাতালটাকে নিজের বাড়ি মনে করি। আমার বাড়ির লোকজন কে চিকিৎসা সেবা দিতেই স্বাচ্ছন্দ বোধ করি। অথচ আমাদের বাড়ির লোকজনের ব্যবহার দেখে আমি বিস্মিত। 

ডাক্তার বায়েজিদ প্রামানিক বলেন, আমরা ডাক্তার আমাদের কাছে কে নেতা, কে ইন্জিনিয়ার, কে শিক্ষক, কে কৃষক এসবের কোন ভেদাভেদ দেখিনা। সবাই সমানভাবে চিকিৎসা পাওয়ার যোগ্য। আমরা সবাইকে সমান ভাবে সেবা দিতে সদা প্রস্তূত। তিনি অনুরোধ করে সাংবাদিকদের জানান, ফুলবাড়ীবাসীকে আমাদের এই ম্যাসেজ টা পৌঁছে দিবেন, গুটি কয়েক লোকের প্ররোচনায় নির্দিষ্ট কিছু লোকের মিথ্যা কথায় কান দিয়ে এই হাসপাতালের প্রতি আস্থা হারাবেন না। আমরা ডাক্তার, আমরা সেবক, আমরা এই ফুলবাড়ীর সন্তান। হাসপাতালটিকে দেখভাল করার দায়িত্ব আমাদেরও আছে।আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ আ স ম নাঈম ডাক্তারদের নামে মিথ্যা বানোয়াট ভাবে অপপ্রচার এবং সম্মানহানির তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বলেন, আমরা ডাক্তাররা সেবক হিসেবে থাকতে চাই।, আমাদের টিএইচও স্যার ট্রেনিংয়ে আছেন। স্যারকে ফোনে বিষয়টি অবগত করেছি। স্যার আসলে আমরা এর অফিসিয়ালি ব্যাবস্থা নেব।

এছাড়াও জবাবী বক্তব্য দেন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ আ স ম নাঈম, মেডিকেল অফিসার বায়োজিদ হাসান, মেডিকেল অফিসার ডাঃ নাজনীন হোসেন, ডাঃ আফিয়া তাবাসসুম, ডাঃ সরকার নুশরাত, উপ সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার তহিদুল ইসলাম, মুকুল বিকাশ রায় সহ অন্যান্য চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীবৃন্দ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, ফুলবাড়ী প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক রবিউল ইসলাম বেলাল, ফুলবাড়ী উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি উত্তম কুমার মোহন্ত, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম, সিনিয়র সাংবাদিক আব্দুল আজিজ মজনু, শাহীনুর রহমান শাহীন, অনিল চন্দ্র রায়, নুরনবী মিয়া, ইউনুস আলী আনন্দ সহ উপজেলার বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার গণমাধ্যমকর্মী উপস্থিত ছিলেন। 

উল্লেখ্য, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এর কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার আনোয়ার হোসেন কর্তৃক শিক্ষক লাঞ্ছিতের অভিযোগ এনে তার অপসারণের দাবিতে মানববন্ধন করেন উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতি। এরই প্রেক্ষিতে রাত সাড়ে নয়টার দিকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের একটি কক্ষে চিকিৎসকের সমন্ধে অপপ্রচার এবং সম্মান হানির অপচেষ্টার প্রতিবাদ স্বরুপ এক প্রতিবাদী সংবাদ সম্মেলন করেন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীবৃন্দ। সংবাদ সম্মেলনে চিকিৎসকরা শিক্ষকদের অভিযোগকে মিথ্যা, বানোয়াট ও মানববন্ধন করা ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন।


 

 

একুশে সংবাদ/আ.হো/এস.আই