AB Bank
ঢাকা শুক্রবার, ২৪ মে, ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

নেত্রকোণার মদনে চাঞ্চল্যকর দস্যুতা, আসামি গ্রেফতার


Ekushey Sangbad
মোঃ সাকের খান, মদন, নেত্রকোণা
০৩:৫৮ পিএম, ১৯ এপ্রিল, ২০২৪
নেত্রকোণার মদনে চাঞ্চল্যকর দস্যুতা, আসামি গ্রেফতার

নেত্রকোনার মদনে চাঞ্চল্যকর দস্যুতার ঘটনায় মালামাল উদ্ধারসহ চার আসামি গ্রেফতার করেছে মদন থানা পুলিশ।

শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) পুলিশ ব্রিফিংয়ে ওসি উজ্জল কান্তি সরকার জানায়, খন্দকার ইদ্রিছ মিয়ার ছেলে মোবাশ্বের হোসেন ১৫ এপ্রিল পাবনা বিয়ে করে কনে নিয়ে ২টি মাইক্রোবাস যোগে তার আত্মীয় স্বজন নিয়ে নিজ বাড়ি জাহাঙ্গীরপুরের উদ্দেশে রওনা দেয়। রাত আনুমানিক ৩.২০ ঘটিকায় কেন্দুয়া রোড হইতে মদন থানাধীন বাড়রী বয়রাহালা ২নং ব্রিজের নিকট আসলে তাদের ১ম নোহা মাইক্রোবাসটি আনুমানিক ১০ হাত উত্তরে পাকা রাস্তার উপর পৌঁছা মাত্রই অজ্ঞাতনামা ৪ জন দস্যু পূর্ব পরিকল্পিতভাবে ব্রিজের উভয় পাশের পিলারের সাথে মাছ ধরার জাল দ্বারা বেঁধে রাখে এবং রাস্তার মাঝে একটি হ্যান্ডট্রলি দাঁড় করিয়ে রাস্তায় ব্যারিকেড দিয়ে তাদের মাইক্রোবাসটির গতিরোধ করে ডাকাত দল ৩টি স্মার্ট ফোন, ১টি বাটন ফোন, স্বর্ণের বিভিন্ন গহনা অনুমান ৭ ভরি এবং নগদ ৬৩০০০ টাকা ছিনতাই করে নিয়ে যায়। 

এ নিয়ে মোবাশ্বের হোসেন বাদী হয়ে মদন থানায় একটি জিডি করে। উক্ত ঘটনার পূর্বে একই দিন আনুমানিক রাত ১১ ঘটিকায় দুষ্কৃতিকারীগণ কেন্দুয়া থানাধীন পাচহার গ্রামে কাঁচা রাস্তার উপর একটি মোটরসাইকেলের গতিরোধ করে ২ জন আরোহীদ্বয় সানোয়ার ও সেকুলের নিকট হতে লাঠি, দায়ের ভয় দেখিয়ে মারপিট করে সানোয়ারের নিকট হইতে ১টি স্মার্ট ফোন ও ২০০০০ টাকা এবং সেকুলের নিকট থেকে ১৩০০০ টাকা ছিনিয়ে নেয়। অল্প সময়ের ব্যবধানে আরেকটি মোটরসাইকেল কেন্দুয়া থেকে পাচহার নামক স্থানে আসার সময় দস্যুরা সেটির গতিরোধ করে মোটরসাইকেলের চালকের নিকট থেকে ৮০০  টাকা ছিনিয়ে নেয়। 

পরবর্তীতে মদন থানার পুলিশের একটি চৌকস দল নেত্রকোণা ডিবি পুলিশের এলআইসি টিমের সহায়তায় অভিযান পরিচালনা করে এবং তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় গত ১৬/০৪/২৪ তারিখ রাত অনুমান ৯ ঘটিকায় কিশোরগঞ্জ জেলার ভৈরব থানা এলাকা থেকে জাকির হোসেন (২৪), পিতা-মোঃ কদ্দুছ আলী, সাং-অষ্টগ্রাম, থানা-অষ্টগ্রাম, জেলা-কিশোরগঞ্জকে গ্রেফতার করে এবং তার নিকট থেকে লুষ্ঠিত একটি স্মার্ট ফোন ও নগদ ৩০০০ টাকা উদ্ধার করে। 

জাকির হোসেনের দেয়া তথ্যমতে এবং তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় মদন থানার পুলিশ ১৭/০৪/২৪ তারিখ বিকাল অনুমান ৫.৩০ ঘটিকায় ঢাকার যাত্রাবাড়ী থানাধীন শনির আখড়া ব্রীজের উপর থেকে আসামী মোঃ আরিফ হোসেন (২৯), পিতা-মৃত সোলেমান হোসেন, সাং-দৌলতপুর, থানা-বানিয়াচং, জেলা-হবিগঞ্জকে গ্রেফতার করে। 

আসামি জাকির হোসেন ও মোঃ আরিফ হোসেনদ্বয়কে গ্রেফতার করার পর তাদের দেওয়া তথ্যমতে কমলাপুর রেলষ্টেশন হতে অপর আসামী মোঃ শাহীন আলম (৩৫), পিতা-মৃত শিশু মিয়া, সাং-ভরমপুর, থানা-চুনারুঘাট, জেলা-হবিগঞ্জ ও মোঃ বাবুন মিয়া (২৪), পিতা-মোঃ জিয়ার উদ্দিন, সাং-শ্রীরামপাশা, থানা-আটপাড়া, জেলা-নেত্রকোণাদ্বয়কে গ্রেফতার করে এবং তাদের নিকট হতে লুণ্ঠিত দুইটি স্মার্ট ফোন উদ্ধার করে। 

পরবর্তীতে গ্রেফতারকৃত ০৪ জন আসামিদের নিয়ে লুণ্ঠিত মালামাল উদ্ধারের জন্য নেত্রকোণায় পৌঁছে ১৮/০৪/২৪ তারিখ বিকাল অনুমান ২.৩০ ঘটিকায় আসামি মোঃ বাবুন মিয়ার দেয়া তথ্যমতে আটপাড়া থানাধীন তেলিগাতী বাজার হতে রোপন দেবনাথ, পিতা-মৃত অনিল দেবনাথ, সাং-শাসনকান্দি, থানা-আটপাড়া, জেলা-নেত্রকোণার জুয়েলারী দোকান হতে লুণ্ঠিত স্বর্ণ যার পরিমাণ- ২ আনা ২ রতি উদ্ধার করে এবং সকল আসামির দেখানো মতে ১৮/০৪/২৪ তারিখ বিকাল অনুমান ৫ ঘটিকায় মামলার ঘটনাস্থল থেকে ডাকাতিতে ব্যবহৃত মালামাল উদ্ধার করা হয়। 

তাদের বিরুদ্ধে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন আছে বলে ওসি উজ্জল কান্তি সরকার জানান।

 

একুশে সংবাদ/বিএইচ

Link copied!