AB Bank
ঢাকা মঙ্গলবার, ১৮ জুন, ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

চিন্নাস্বামীতে বাসি-পচা খাবার খেয়ে জ্ঞান হারালেন দর্শক!


Ekushey Sangbad
স্পোর্টস ডেস্ক
০১:১৪ পিএম, ১৮ মে, ২০২৪
চিন্নাস্বামীতে বাসি-পচা খাবার খেয়ে জ্ঞান হারালেন দর্শক!

ভারতের যে কোন প্রান্তেই খেলা হোক না কেন আইপিএলের ম্যাচ দেখতে মাঠে দর্শকাসনে তিল ধারনের জায়গা থাকে না। মাঠে উপস্থিত দর্শকদের খাবার থেকে পানি সবকিছুর ব্যবস্থাই করে থাকে সেই রাজ্যের ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন। অবশ্যই একটা নির্দিষ্ট মূল্যের বিনিময়ে সেই খাবার কিনে খেতে হয়। তবে পানির জন্য সাধারণত কোন পয়সা খরচ করতে হয় না। যদি কেউ মিনারেল ওয়াটার বা বোতলবন্দি পানি খেতে চান তখন ব্যাপারটা আলাদা।

মাঠে ম্যাচ ডে-তে সাধারণত এইসব খাবারের দাম হয় অত্যন্ত বেশি। অত্যধিক টাকা দিয়ে কেনা সেই খাবার আপনি যদি দেখেন বাসি বা পচা, আর উপায় না থাকাতে সেই খাবার খেয়েই যদি আপনাকে জ্ঞান হারাতে হয়, তাহলে স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন ওঠে। ঠিক এমন ঘটনাই ঘটেছে কর্ণাটকের বেঙ্গালুরুতে। যেখানে চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামের ক্যান্টিনের খাবার খেয়ে অজ্ঞান হয়ে যান এক দর্শক। ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে দায়ের হয়েছে এফআইআর।

ঘটনাটি ঘটেছে সম্প্রতি। ১২ মে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু মুখোমুখি হয়েছিল দিল্লি ক্যাপিটালস দলের। সেই ম্যাচেই ঘটেছে এই ঘটনা। ঘরের মাঠে আরসিবি হারিয়ে দিয়েছে দিল্লিকে। এই ম্যাচ দেখতে সেদিন মাঠে উপস্থিত ছিলেন ২৩ বছর বয়সী সমর্থক চৈতন্য। ওই ম্যাচে ক্ষিধে মেটাতে স্টেডিয়ামের ক্যান্টিন থেকে খাবার কিনে খান চৈতন্য। তার পরেই হঠাৎ করেই তিনি ওই খাবার খেয়ে অজ্ঞান হয়ে যান।

ঘটনায় কিউবন পার্ক থানাতে এফআইআর দায়ের করেন ওই যুবক। ভারতীয় দন্ডবিধির ২৮৪ নম্বর ধারায় দায়ের হয়েছে মামলা। সেদিন জ্ঞান হারানো চৈতন্যকে সঙ্গে সঙ্গে কাছের একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। ওই হাসপাতালের ডাক্তারদের তরফেও নিশ্চিত করা হয়েছে ক্যান্টিনের বাসি, পচা খাবারের কারণেই চৈতন্যর এই অবস্থা হয়েছে। 

কিউবন পার্ক থানাতে এফআইআর দায়ের করার সময়ে চৈতন্য লিখেছেন, ‘ম্যাচ চলাকালীন আমার ক্ষিদে পেয়েছিল। আমি ক্যান্টিনে যাই খাবার কিনে খেতে। আমি ওখান থেকে ঘি-ভাত, চানা মশলা, ড্রাই জামুন এবং কাটলেট কিনেছিলাম খাবার জন্য। আমার খাবার শেষ করার দুই মিনিটের মধ্যেই আমি অসুস্থ বোধ করি। এর পাঁচ মিনিট বাদেই আমি আমার সংজ্ঞা হারাই।’

কিউবন পার্ক পুলিশের তরফে চিন্নাস্বামীর ম্যানেজমেন্টের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। পাশাপাশি মামলা দায়ের হয়েছে ক্যান্টিন কতৃপক্ষের বিরুদ্ধে। থানার তরফে এই বিষয়ে স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষকে রিপোর্ট দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এই রিপোর্ট পাওয়ার পরেই প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ পুলিশ গ্রহণ করবে বলে জানিয়েছে।

একুশে সংবাদ/এস কে  

 

Link copied!