AB Bank
ঢাকা বুধবার, ২২ মে, ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
ekusheysangbad QR Code
BBS Cables
Janata Bank
  1. জাতীয়
  2. রাজনীতি
  3. সারাবাংলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. অর্থ-বাণিজ্য
  6. খেলাধুলা
  7. বিনোদন
  8. শিক্ষা
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. অপরাধ
  11. প্রবাস
  12. রাজধানী

ঘোড়াঘাটে অগ্নিকান্ডে বাড়িঘর ও মালামাল ভস্মীভূত


ঘোড়াঘাটে অগ্নিকান্ডে বাড়িঘর ও মালামাল ভস্মীভূত

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে অগ্নিকাণ্ডে ২টি পরিবারের বাড়িঘর ও মালামাল পুড়ে ভস্মীভূত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। 

শুক্রবার (১৫ মার্চ) দিবাগত রাত সাড়ে ১১টার দিকে ঘোড়াঘাট উপজেলার রানীগঞ্জ বাজার এলাকায় নুরপুর  দক্ষিণ দেবীপুর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় ১৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানিয়েছে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের লোকজন।স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, নুরপুর দক্ষিণ দেবীপুর গ্রামের বাসিন্দা আছম উদ্দিনের ছেলে আব্দুল হাইয়ের বাড়ির একটি কক্ষ থেকে এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত ঘটেছে। 

এ ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত দুটি পরিবারের ৭টি কক্ষে থাকা আসবাবপত্র, কাপড় চোপড়সহ যাবতীয় মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

এ বিষয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এক পরিবারের আব্দুল হাই জানান, গতরাতে তারাবীর নামাজ শেষে ঘরে শুয়ে থাকা অবস্থায় বাড়ির অব্যবহৃত কক্ষ থেকে ধোঁয়ার গন্ধ পেয়ে বের হয়ে এসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা দেখতে পাওয়ার মূহুর্তেই পুরো বাড়িঘরে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। এতে বাড়িতে থাকা আসবাবপত্র, কাপড়-চোপড় ও যাবতীয় মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়। অপরদিকে আরেক পরিবারের গৃহকর্তী স্বামী পরিত্যক্তা লাইলী বেগমের বাড়ির ৩টি কক্ষও পুড়ে ছাই হয়ে যায়। বর্তমানে পরিবার দুটির মাথা গোঁজার ঠাই নেই। শনিবার সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম ঘটনাস্হল পরিদর্শন করেন। 

এ সময় উপজেলা মেডিকেল অফিসার ডাঃ আহসান হাবীব, সিংড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাজ্জাত হোসেন, ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যগন উপস্থিত ছিলেন। 

এ ব্যাপারে ঘোড়াঘাট ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন ইনচার্জ নিরঞ্জন সরকার জানান, খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করা হয়েছে। কিন্তু এর আগেই বাড়ি দুটি প্রায় পুড়ে যায়। বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হতে পারে। এতে প্রায় ৫, ৬ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। অপরদিকে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের গৃহকর্তা আব্দুল হাইয়ের দাবি কক্ষটি দীর্ঘদিন থেকে অব্যবহৃত ভাবে পড়ে ছিল। সেখানে কোনো বৈদ্যুতিক সংযোগ ও অগ্নিকাণ্ড ঘটার মতো কিছু ছিল না।

 

একুশে সংবাদ/বিএইচ

Link copied!