ঢাকা শুক্রবার, ১৪ মে, ২০২১, ৩১ বৈশাখ ১৪২৮

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
Janata Bank
Rupalibank

কোচবিহারে শীতলকুচিতে বুথের বাইরে বাহিনীর গুলিতে মৃত ৫


Ekushey Sangbad

০২:১৭ পিএম, ১০ এপ্রিল, ২০২১
কোচবিহারে শীতলকুচিতে বুথের বাইরে বাহিনীর গুলিতে   মৃত ৫

রাজ্যের ৫ জেলার ৪৪ আসনে চলছে চতুর্থ দফার ভোটগ্রহণ পর্ব। নির্বাচন কমিশনের কড়া নজরদারিতে ভোটগ্রহণ পর্ব চললেও বিক্ষিপ্ত অশান্তি লেগেই রয়েছে বিভিন্ন বুথে। কোচবিহারের শীতলকুচির জোড় পাটকিতে চলল গুলি। কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানদের গুলিতে প্রাণ হারালেন ৪ জন। আর আহত হলেন ৫ জন।

মৃতরা প্রত্যেকে তৃণমূলের সক্রিয় কর্মী ছিলেন। জানালেন তৃণমূল নেতৃত্ব। কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি চালানোর ঘটনা নিয়ে গর্জে উঠেছেন তৃণমূল কর্মী–সমর্থকরা। এই ঘটনা প্রসঙ্গে তৃণমূল নেতৃত্বের অভিযোগ, কেন্দ্রীয় বাহিনী বেছে বেছে আক্রমণ চালাচ্ছে তৃণমূল কর্মী–সমর্থকদের উপর।

আর এদিন কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলিতে প্রাণ হারাল ৫ তৃণমূল কর্মী। কেন্দ্রীয় বাহিনীর এই গুলি চালানোর ঘটনায় নির্বাচন কমিশনকে জবাব দিতে হবে। আর এই ঘটনা প্রসঙ্গে বিজেপির দিনহাটার প্রার্থী নিশীথ প্রামাণিক বলেন, বাহিনীর বিকরুদ্ধে উস্কানি দিয়েছেন মমতা ব্যানার্জি। সেই প্ররোচনাতেই তৃণমূলের হাতে আক্রান্ত হয়েছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। তারপরই আত্মরক্ষার জন্য গুলি চালাতে বাধ্য হয় সিএপিএফরা‌।

এই ঘটনায় নড়েচড়ে বসে নির্বাচন কমিশন। দ্রুত অ্যাকশন টেকেন রিপোর্ট চেয়ে পাঠায় কমিশন। যে রিপোর্ট নির্বাচন কমিশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবের কাছে এসে পৌঁছয় তাতে উল্লেখ করা হয়েছে শীতলকুচির জোড় পাটকিতে ১২৬ নম্বর বুথের বাইরে প্রায় ১০০ জনের জমায়েত ছিল। সেই জমায়েত হটাতে গেলে কেন্দ্রীয় বাহিনীর দিকেই আক্রমণ করতে এগিয়ে আসে একদল লোক।

কেন্দ্রীয় বাহিনীর বন্দুকও কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করে তারা। তাই আত্মরক্ষার্থে বাধ্য হয়ে গুলি চালায় কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা। গুলি চালানোর ঘটনা নিয়ে যথেষ্ট চাপানউতোর তৈরি হয়েছে রাজ্য রাজনীতিতে। কোচবিহারের শীতলকুচিতে শান্তিতে ভোট করানোই এখন মূল চ্যালেঞ্জ নির্বাচন কমিশনের কাছে।

 

আজকাল