ঢাকা বুধবার, ০৬ জুলাই, ২০২২, ২১ আষাঢ় ১৪২৯

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
Janata Bank
Rupalibank

সহজেই অর্থ উপার্জন টুইটার থেকে


Ekushey Sangbad
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
০৪:৫১ পিএম, ২১ মে, ২০২২
সহজেই অর্থ উপার্জন টুইটার থেকে

 

এখন সোশ্যাল মিডিয়ার সাথে নেই এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া কঠিন। সোশাল নেটওয়ার্কিং সাইটগুলোর সুবাদে অনলাইন মার্কেটিং দ্রুত হয়ে গেছে আবার এই সাইটগুলো যেমন ফেসবুক, টুইটারের কদরও বেড়ে চলছে। এখন অনেকেই এই সাইটগুলোকে নিজের ব্যবসা, প্রচারণার ক্ষেত্রে বিশাল আকারে ব্যবহার করছেন। ঠিক তেমনি বর্তমান সময়ে ইউজারদেরও রোজগারের পথ সহজ করছে টুইটার। টুইটারে যে যত বেশি পরিশ্রম করতে পারবেন, ঠিক সে ততবেশি রোজগারও করতে পারবেন।

 

টুইটার থেকে আপনি এত টাকাই উপার্জন করতে পারবেন যে, আপনার সংসার খরচ তো চলেই যাবে, সঙ্গে বিলাসবহুল জীবনযাপনও করতে পারবেন।

 

আপনি যদি ট্যুইটারে খুব জনপ্রিয়তা পান, আপনার যদি একটা ব্লু টিক থাকে, তাহলে এক-একটা ট্যুইট থেকে আপনি পেতে পারেন ৫০ হাজার টাকা থেকে ১ লাখ টাকা। ট্যুইটার থেকে জাস্ট একটা ট্যুইট করেই আপনি কীভাবে লাখ টাকা রোজগার করতে পারেন, সেই পদ্ধতিই আজ একবার দেখে নেওয়া যাক।

 

প্রথমেই আপনাকে ট্যুইটারে একটা অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে। ধীরে ধীরে আপনার ট্যুইটার প্রোফাইলে আকর্ষণীয় পোস্টের সংখ্যা বাড়াতে হবে। ছবি হোক বা ভিডিয়ো বা বিতর্কিত কোনও পোস্ট – যত বেশি করবেন, যত এনগেজিং করবেন, ততই আপনার ফলোয়ার সংখ্যা বাড়বে। এই ভাবেই আপনাকে ট্যুইটারে অন্তত ১ লাখ ইউজার জোগাড় করতে হবে। তারপরই রোজগারের জন্য আপনি উপলব্ধ হবেন। কীভাবে রোজগার হবে, তা তো পরের প্রশ্ন। এখন আপনার প্রোফাইলে যদি ১ লাখের বেশি ইউজার থাকে, তাহলে আপনার রোজগারের অঙ্কটা একলাফে অনেকটাই বেড়ে যাবে।

 

ট্যুইটার থেকে অর্থ রোজগারের জন্য আর একটি বিশেষ বিষয় হল, আপনার ব্লু টিক প্রোফাইল। আর ব্লু টিক আপনাকে ট্যুইটার তখনই দেবে, যখন আপনার ইউজার সংখ্যা অন্তত ৫০ হাজার থেকে ১ লাখ হবে। মনে রাখবেন, ব্লু টিক প্রোফাইল ছাড়া ট্যুইটারে রোজগার একপ্রকার অসম্ভব। তার কারণ হল, হালফিলে ট্যুইটার খুললেই ভুয়ো ট্যুইটের ছড়াছড়ি। এখন আপনার যদি একটা ব্লুটিক ট্যুইটার প্রোফাইল থাকে, তাহলে আপনার বিভিন্ন ট্যুইট পোস্ট মানুষের কাছে আরও বিশ্বাসযোগ্য হবে। আপনার পোস্ট অন্যান্য ইউজারদের কাছে যতই বিশ্বাসযোগ্য হবে, ততই আপনার অর্থ রোজগারের সম্ভাবনাও বেড়ে যাবে।

 

ফলোয়ার ও ব্লু টিক পাওয়ার পরই আপনার প্রোফাইলে পেইড প্রমোশন শুরু হবে। এখন আপনার পরিচিতি যদি ভাল হয়, জনপ্রিয় লোকেরা আপনাকে ফলো করেন, তাহলে বিভিন্ন কোম্পানির প্রডাক্ট ট্যুইটারে শেয়ার করে, তাদের কাছ থেকে সরাসরি টাকা পেয়ে যাবেন। এই ধরনের ট্যুইটকে বলা হয় ঘোস্টরাইট ট্যুইট। যে কোনও কোম্পানির প্রডাক্ট শেয়ার করে এই ভাবে অর্থ উপার্জনের জন্য আপনাকে অত্যন্ত জনপ্রিয় হতে হবে। আপনার প্রোফাইলে এমন কিছু মানুষজনকে থাকতে হবে, যারা যথেষ্টই প্রভাবশালী।

 

ট্যুইটারে আপনি চাইলে যে কোনও পণ্য বিক্রি করতে পারেন। তাতে আপনি ১০০ শতাংশ লাভ করতে পারবেন। তার জন্য ট্যুইটারে একটি বিশেষ অপশন রয়েছে। সেই পদ্ধতিটি অনুসরণ করলে খুব সহজেই আপনি অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। পাশাপাশি এখান থেকে পেইড প্রমোশনের সাহায্যও নেওয়া যেতে পারে। কেউ যদি ট্যুইটার থেকে কোনও পণ্যের অর্ডার দেন, সেই ব্যক্তিকে লাভের কিছু অংশও দিয়ে থাকে সংস্থাটি। তবে তার জন্য সবথেকে বেশি জরুরি হল একটা ভাল প্রোফাইল তৈরি করা।

 

একুশে সংবাদ/ঢ.ট/রখ