ঢাকা শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১ আশ্বিন ১৪২৮

সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল

Ekushey Sangbad
Janata Bank
Rupalibank

সস্ত্রীক হানিমুনে মডেল নিলয়


Ekushey Sangbad
বিনোদন ডেস্ক
০৩:৫৩ পিএম, ১৬ আগস্ট, ২০২১
সস্ত্রীক হানিমুনে মডেল নিলয়

অভিনেতা ও মডেল নিলয় আলমগীর গত ৭ জুলাই পরিবারিকভাবে বিয়ে করেছেন গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজের শিক্ষার্থী তাসনুভা তাবাসসুম হৃদিকে। বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সেরেছেন নিলয়ের উত্তরার বাসায়।

লকডাউনের কারণে সীমিত আয়োজনের বিয়েতে দুই পরিবারের ঘনিষ্ঠজন এবং নিলয়ের বন্ধুরা উপস্থিত ছিলেন। নিলয়ের বোন অস্ট্রেলিয়া থেকে দেশে ফিরলেই বিবাহোত্তর সংবর্ধনার আয়োজন করা হবে- এমনটাই জানিয়েছেন অভিনেতা।

লকডাউন তুলে নেওয়ায় স্ত্রীকে নিয়ে হানিমুনে গেছেন নিলয়। অভিনেতা জানান, সোমবার (১৬ আগস্ট) সকালে কক্সবাজার উড়াল দিয়েছেন তারা। শুক্রবার (২০ আগস্ট) সকালে ঢাকায় ফিরবেন এ দম্পতি। এরপর সন্ধ্যায় বন্ধুদের নিয়ে নিজের জন্মদিন উদযাপন করবেন তিনি।

সময় নিউজকে নিলয় আলমগীর বলেন, ‘দেশের বাইরে ঘুরতে যাওয়ার ইচ্ছা ছিল না। দেশের মধ্যেই কয়েক জায়গায় ঘোরার পরিকল্পনা আছে। লকডাউন তুলে নেওয়ায় সুযোগটা কাজে লাগালাম। পুরো সময়টা নিজেদের মতো করে কাটাতে চাই।’

গেল বছর লকডাউনে হৃদির সঙ্গে পরিচয় হয় নিলয়ের। তারপর প্রেম-পরিণয়। স্ত্রীর সঙ্গে একাধিক ছবি শেয়ার করে দুষ্টু নেটিজেনদের কটূ আক্রমণের শিকার হয়েছিলেন নিলয়। ফেসবুক স্ট্যাটাসে বিষয়টি তুলে ধরেছেন এ অভিনেতা।

১৪ আগস্ট নিজের ফেসবুকে নিলয় লিখেছেন, ‘কি যে একটা সমস্যায় আছি। বিয়ে করেছি, ২য় বিয়ে। হালাল সম্পর্ক, বৈধ সম্পর্ক। চুরি, ডাকাতি, খুন, ধর্ষণ তো আর করি নাই। নতুন বউ এর সাথে হাসি খুশি ছবি দিলে কমেন্ট করতেসে, এত নির্লজ্জ কেন আপনি, ২য় বিয়ে করসেন আবার বউয়ের সাথে ছবি দেন। একা ছবি দিলাম তাতেও সমস্যা, বিয়ের পর একা ছবি কেনো। আমার বিড়ালের সাথে ছবি দিলাম সেটাও সমস্যা।’

স্ট্যাটাসের শেষে এ অভিনেতা লিখেছেন, ‘এক হাজারের উপরে ছবি তুলেছি। গালি খাওয়ার ভয়ে পোস্ট করতে পারছি না। আমার এতো ছবি লইয়া আমি এখন কোথায় যাইব।’

এ স্ট্যাটাসের পর নিলয়ের পাশে দাঁড়িয়েছেন শোবিজের অনেক তারকা। বিষয়টি নিয়ে মুখ খুলেছেন তাহসান খান। নিজের ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে নিলয়ের পাশে দাঁড়িয়েছেন শবনম ফারিয়াও।

এ অভিনেত্রী লিখেছেন, ‘সরি নিলয় ভাই, কেউ ভালো আছে, সুস্থ আছে, সুখে আছে, খুশি আছে দেখলে আমরা সহ্য করতে পারি না! তাদের টেনে ধরে নিচে নামাতে ইচ্ছে হয় আমাদের! আমাদের নিজেদের জীবনে কোনো সুখ নেই, তাই অন্য কারোর ভালো থাকাও মেনে নিতে পারব না।’

এছাড়া ফারিয়া আরও লেখেন, ‘আমরা এমনই হিংসুইট্যা, প্লিজ কষ্ট পেয়ো না। তুমি সেটাই কর যেটা তোমাকে খুশি দেয়! আমাদের ছ্যাচরামি কোনো কিছুর মূল্যেই থামানো যাবে না। অনেক অনেক দোয়া আর শুভ কামনা তোমার নতুন জীবনের জন্য।’

একুশে সংবাদ/স/তাশা